banner

The New Stuff

18057189_1341071809310969_2890218475897828093_n
1148 Views

উম্মেহানী এর পরিচয় ও নাস্তিকদের দাঁত ভাংগা জবাব


মাসুদ পারভেজ –

উম্মেহানী এর পরিচয় ও নাস্তিকদের দাঁত ভাংগা জবাব

আজ থেকে ৩ বছর আগে আমি যখন ব্লগজগতে প্রবেশ করি তখন থেকেই আমি দেখছি আবুল কাশেম, আসিফ মুহিউদ্দিন টাইপ নামক কিছু জারজ মুক্তমনা ব্লগাররা রাসূল(সা:)এর সাথে উম্মে হানীর একটা অনৈতিক সম্পর্ক ছিল তা বলে বেড়াত। কিন্তু
কে এই উম্মে হানী?
উনার পরিচয় কি?
এই উম্মে হানীর বয়স কত সে সম্পর্কে আমি কিছুই জানতাম না।
শুধু আমি না অনেক মুসলমানই এই উম্মে হানী সম্পর্কে কিছুই জানে না। আর এই না জানার সুযোগটাই নিয়েছে নাস্তিকরা। মুক্তমনার আবুল কাশেম, আসিফ মুহিউদ্দীন,মুক্তমনা ব্লগে উম্মে হানীকে নিয়ে ৫ টা ব্লগ লিখেছে। সেই ৫ টা ব্লগে আবুল কাশেম উম্মে হানীর সাথে রাসূল(সা:)এর একটা অনৈতিক সম্পর্ক ছিল তা প্রমান করতে আপ্রাণ চেষ্টা করেছে। আবুল কাশেম বলতে চেয়েছে, উম্মে হানীর সাথে রাসুল(সা:)এর একটা অনৈতিক সম্পর্ক ছিলো।

এখন উম্মে হানীকে নিয়ে আবুল কাশেম টাইপ লোকদের কথাবার্তার ব্যবচ্ছেদ করবো।

উম্মে হানী নামক এই মহিয়সী সাহাবিয়্যার নাম ছিল ফাখতা। হিন্দ নামেও উনাকে ডাকা হত। বিয়ের পর উনি উম্মে হানী নামে পরিচিত হন। উম্মে হানী ছিল উনার কুনিয়াত। উম্মে হানী ছিলেন রাসূল(সা:)এর আপন চাচা আবু তালেবের জ্যৈষ্ঠ কন্যা ও হযরত আলীর বড় বোন। অর্থ্যাৎ উম্মে হানী ছিলেন রাসূল(সা:)এর আপন চাচাত বোন। তিনি রাসূলের সম বয়স্কা ছিলেন। তবে অনেক রেওয়াতে পাওয়া যায় উম্মে হানী রাসূল(সা;)এর চেয়ে বয়সে বড় ছিলেন তবে অধিকাংশ সীরাতবিদ উম্মে হানী কে সমবয়সী বলেছেন। তাইলে অধিকাংশ সীরাতবিদের কথামত মেরাজের ঘটনার সময় উম্মে হানী ও রাসূল উনাদের উভয়ের বয়সই ছিল ৫০ এর উপরে। যুবক বয়সেই রাসূল (সা:) আবু তালেবের কাছে উম্মে হানীকে বিয়ে করার জন্য প্রস্তাব দিয়েছিলেন কিন্তু আবু তালেব রাসূল(সা:)এর সাথে তার মেয়ের বিয়ে না দেয়ার কারণ ছিল তিনি আগেই হুবাইরা বিন আয়েয আল মাখযুমীকে বিয়ের ব্যাপারে কথা দিয়ে দিয়েছিলেন। পরে হুবায়রার সাথেই উম্মে হানীর বিয়ে হয়েছিল। আমরা জানি আরবগণ কারও সাথে কথা দিলে যে কোন মূল্যে তা পালন করত। এটা আরবদের একটি উল্লেখ যোগ্য চারিত্রিক বৈশিষ্ট। তাই খুব স্বভাবতই আবু তালেব রাসূল (সা:)এর প্রস্তাব গ্রহণ করতে পারেন নি।
কিন্ত তাই বলে কি আত্মীয়তার সম্পর্ক সেখানেই শেষ হয়ে গেল? না হল না। তাই রাসূল(সা:) আত্মীয়তার সম্পর্কের কারণেই আপন চাচাত বোন হিসাবে উম্মে হানীর সাথে দেখা স্বাক্ষাৎ বা যোগাযোগ রক্ষা করতেন।
আবু তালেবের গৃহে একই সঙ্গে লালিত পালিত হওয়ায় উম্মে হানী রাসূল কে সহোদরের ন্যায় স্নেহ করতেন। তাদের পারস্পরিক সম্পর্ক ছিল আপন ভাই বোনের মতো। উম্মে হানীর স্বামীর নাম ছিল হুবায়রা। উম্মে হানীর চার সন্তান ছিল। তাদের নাম হল: আমর, জাদাহ, হানী এবং ইউসুফ। অর্থ্যাৎ উনার প্রথম সন্তান হানীর নামে উনাকে উম্মে হানী বলে ডাকা হত। খাদিজা রাযিয়াল্লাহ আনহা ও আবু তালেবের মৃত্যুর পর রাসূল(সা:) খুব অসহায় হয়ে পরেছিলেন। সেই সময় সালাত আদায় করতে গেলে কাফেররা রাসূল(সা:)এর মাথার উপর উটের নাড়ি ভূড়ি ফেলে দিত। মক্কী জীবন(সা:) মাঝে মাঝে বিভিন্ন প্রভাবশালী সাহাবীদের গৃহে অবস্থান করে অন্যান্য সাহাবীদের কে দ্বীন শিক্ষা দিতেন। যেমন সাহাবী আরকাম ইবনে আবুল আরকামের ঘর সাফা পাহাড়ের উপর অবস্থিত ছিল। তাই নব্যুয়তের ৫ম বছর থেকে দারে আরকাম কে রাসূল(সা:) দ্বীনের দাওয়াত এবং মুসলমানদের সাথে মেলামেশার কেন্দ্ররুপে নির্ধারন করেন। যেহেতু উম্মে হানী এবং উনার ২ ভাই হযরত আলী ও জাফর উনারা উভয়েই মুসলমান ছিলেন ও উম্মে হানীর স্বামী হুবায়রা মুসলমান না হলেও রাসূল(সা:)এর প্রতি শ্রদ্ধাশীল ছিলেন তাই রাসূল(সা:) মাঝে মাঝে উম্মে হানীর গৃহে সালাত আদায় করতেন এবং অন্যান্য সাহাবীদের কে দ্বীন ইসলাম শিক্ষা দিতেন। উম্মে হানীর ঘর কাবা শরীফের খুব সন্নিকটেই ছিল। উম্মে হানী বিনতে আবু তালেব থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন- “ আমি রাসুল(সা:)ক্র রাতের কিরাত আমার চাদোয়া বা তাবুর নিচ থেকে শুনতাম। “ অর্থ্যাৎ রাসূলাল(সা:) যখন কাবা শরিফে রাতে সালাত আদায় করতেন তখন তা উম্মে হানী উনার ঘর থেকেই শুনতে পেতেন। আর উম্মে হানীর পিতা রাসূল এর আপন চাচা আবু তালেব তো সব সময়ই রাসূলের শুভাকাঙ্গী ছিলেন। আর হাশেমী গোত্র সব সময়ই রাসূল(সা:)এর পাশে ছিল। আর উম্মে হানীর স্বামী হুবায়রা কখনই রাসূলের প্রতি কোন বিরুপ মন মানসিকতা পোষন করতেন না। তাই আমরা বুঝতে পারছি যে উম্মে হানীর পরিবার পরিজনের বেশীর ভাগ সদস্য ও উম্মে হানী রাসূলের আপন চাচাত বোন হবার কারনে রাসূল(সা:) উম্মে হানীর গৃহকে নিরাপদ ভাবতেন। ব্যাস এতটুকুই। কিন্তু নাস্তিকরা কি চমৎকার ভাবেই না এই উম্মে হানীকে কেন্দ্র করে রাসূল(সা:)এর ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে আজেবাজে কথা বলে যাচ্ছে। কিন্তু গাধার দল এটা জানে না এই মেরাজের ঘটনার সময় এই উম্মে হানীর বয়স ছিল ৫০ বছর। ৫০ বছর বয়সী মহিলা রাসুলের আপন চাচাত বোন উম্মে হানী।

এখন নাস্তিকদের চোখে বিশ্ব সুন্দরী। সীরাত সাহিত্যে পাওয়া যায় মেরাজের রাত্রিতে রাসূল(সা:) উম্মে হানীর গৃহে ছিলেন। কিন্তু সহীহ হাদিসগুলিতে এই সম্পর্কে কিছু পাওয়া যায় না। মিরাজের রাতে রাসূল (সা:)কোথায় অবস্থান করছিলেন ? সহীহ বুখারীর বণর্নায় মেরাজের রাতে রাসূল(সা:)হাতীমে কাবায় অবস্থান করছিলেন।
)) ﺃَﻥَّ ﻧَﺒِﻰَّ ﺍﻟﻠَّﻪِ – ﺻﻠﻰ ﺍﻟﻠﻪ ﻋﻠﻴﻪ ﻭﺳﻠﻢ – ﺣَﺪَّﺛَﻬُﻢْ ﻋَﻦْ ﻟَﻴْﻠَﺔَ ﺃُﺳْﺮِﻯَ ﺑِﻪِ ‏« ﺑَﻴْﻨَﻤَﺎ ﺃَﻧَﺎ ﻓِﻰ ﺍﻟْﺤَﻄِﻴﻢِ – ﻭَﺭُﺑَّﻤَﺎ ﻗَﺎﻝَ ﻓِﻰ ﺍﻟْﺤِﺠْﺮِ – ﻣُﻀْﻄَﺠِﻌًﺎ ، ﺇِﺫْ ﺃَﺗَﺎﻧِﻰ ﺁﺕٍ ((
“আল্লাহর নবী (সাল্লালাহু আলাইহী ওয়া সাল্লাম) ইসরার রাতের ঘটনা প্রসেঙ্গে বলেন: আমি তখন হাতীমে কাবা অথবা বলেছেন, হিজরে চিৎ হয়ে শুয়ে ছিলাম। হঠাৎ একজন আগন্তুক আসল)
(সহীহ বুখারী, অনুচ্ছেদ মিরাজ)

আর সুনান তিরমিযীতে বর্ণিত হয়েছে:
ﺑﻴﻨﻤﺎ ﺃﻧﺎ ﻋﻨﺪ ﺍﻟﺒﻴﺖ ﺑﻴﻦ ﺍﻟﻨﺎﺋﻢ ﻭﺍﻟﻴﻘﻈﺎﻥ
“আমি তখন (ইসরার সময়) বাইতুল্লাহ তথা কাবা শরীফের নিকট ঘুমন্ত ও জাগ্রত অবস্থার মাঝে অবস্থান করছিললেন
(হাদীস নং ৩৬৬৯)

 

 



This post has been seen 1155 times.
শেয়ার করুন

Recently Published

Untitled-1
»

ইসলাম প্রতিমার বিরুদ্ধে, ভাস্কর্য ও মূর্তির বিরুদ্ধে নয়, একটি দালীলিক পর্যালোচনা

নাজমুল মুহম্মদ ...

Untitled-2
»

আহমাদিয়া মুসলিম জামাত নামধারী কুখ্যাত কাফের কাদীয়ানিয়াদের স্বরূপ উন্মোচন – ২য় খন্ড

সোনার বাংলাসহ গোটা ...

tumblr_m5ttvwJwae1qkwmgko1_1280
»

মেরাজুন্নাবী (সা) এর মূল দীক্ষাকে অস্বীকার করা প্রত্যক্ষভাবে শানে রেসালাতের অস্বীকৃতি

টাইমস৭১বিডি ডেস্ক, ঢাকা ...

18057189_1341071809310969_2890218475897828093_n
»

উম্মেহানী এর পরিচয় ও নাস্তিকদের দাঁত ভাংগা জবাব

মাসুদ পারভেজ – ...

2014-07-23-GayMene1379371366872
»

কিভাবে বাংলাদেশের জেলায় জেলায় বিদেশী অর্থায়নে ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে সমকামীতা

নিলয় হাসান বলছি –  জেনে ...

8715089964_5a14e1f7f9
»

হেফাজতে ইসলামের চেতনার মূল গোড়ায় “ওহাবীবাদ রাজনীতি”

ইন্টারনেট থেকে প্রাপ্ত ...

ddgdgdg
»

কাদীয়ানিয়াত আহমাদিয়া মুসলিম জামাতের স্বরূপ উন্মোচনে ধারাবাহিক আলোচনা- ১ম পর্ব

ব্লগ ডট টাইমস৭১বিডি থেকে ...

14650162_1793332307615351_7045395582977483766_n
»

“খোমেনীকে সমর্থন দেওয়া মানে শিয়াবাদকে সমর্থন দেওয়া”

‘টাইমস৭১বিডি ‘র ...

salamun alaika
»

আমার প্রিয়নবীর পিতা মাতা নিষ্পাপ-মুমিন-ঈমানদার মুসলমান ছিলেন, জাহান্নামী নন

আমার প্রিয়নবীর  (সা) পিতা ...

Shares
Loading...