banner

The New Stuff

890 Views

পবিত্র কোরআন ও হাদিসের আলোকে ‘ঈদ-ই-মিলাদুন্নাবী ( صلى الله عليه وسلم)


পবিত্র কোরআন ও হাদিসের আলোকে ‘ঈদ-ই-মিলাদুন্নাবী ( صلى الله عليه وسلم)’

লিখনীটি  লিখেছেন – মোঃ সাইফুল ইসলাম

অভিধানের দৃষ্টিতে মিলাদ, মওলেদ এবং মওলুদ এই তিনটি শব্দের অর্থ নিন্মরুপ- 

আরবি ভাষায় সর্ব শ্রেষ্ঠ অভিধান লেসানুল আরব ও বৃহত্তম অভিধান তাজুল আরুছ, কামুস, মুহকাম, তাহজীব, আছাছ, ছেহাহ, ও জওহরি এবং মিছবাহ প্রভৃতি লোগাতে (অভিধানে) বর্ণিত আছে যে, অলিদ, মওলুদ শব্দের অর্থ নবজাত শিশু। মওলুদুর রেজাল অর্থ,  মানুষের জন্মকাল বা জন্মস্থান। মিলাদুর রেজাল অর্থ, মানুষের জন্মকাল বা জন্ম দিন। মিলাদ শব্দটি জন্মকাল ও জন্ম দিন ব্যতিত অন্য কোনো অর্থে ব্যবহার হয় না। সুতরাং মিলাদুন্নবী বা মাওলেদুন্নবীর ব্যাখ্যাই হচ্ছে হযরত মুহাম্মদ মুস্তফা (সা.) এর জন্ম কাহিনী ও তৎসংশ্লিষ্ট ঘটনাবলী আলোচনা করা। (আর আমরা সকলেই জানি ঈদ অর্থ, খুশি বা আনন্দ প্রকাশ করা। ঈদ-ই মিলাদুন্নবী (সা.) এর ব্যাখ্যাই হচ্ছে প্রিয় নবী (সা.) এর জন্মদিন বা জন্ম কাহিনী ও তৎসংশ্লিষ্ট আলোচনা করা বা খুশি উদযাপন করা। এ মাসেই প্রিয় নবী (সা.) ধরার বুকে আগমন করেছেন। এ জন্যই ওলামায়ে কেরামগন এই বরকতময় মাসটিকে ঈদ-ই মিলাদুন্নবী (সা.) বলেছেন এবং পালন করে থাকেন।)

পবিত্র কোরআন এর আলোকে ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী (সা.):

এখানে পবিত্র কোরআনের কয়েকটি আয়াত উল্লেখ করা হলো। যা দ্বারা প্রিয় নবী (সা.) এর মিলাদ পালন করা শুধু বৈধ নয়, বরং সর্বশ্রেষ্ঠ আমল হিসাবে প্রমাণিত হয়েছে। যা নিচে বর্ণনা করা হলোঃ

(এক)

মহান আল্লাহ তা’আলা পবিত্র কালামুল্লাহ শরিফে এরশাদ ফরমান,

হে মানবকুল! তোমাদের কাছে উপদেশ বানী এসেছে তোমাদের রবের পক্ষ থেকে এবং অন্তরের ব্যাধির নিরাময়, হেদায়েত ও রহমত মুসলমানদের জন্য। হে রাসুল (সা.) আপনি বলুন, আল্লাহর অনুগ্রহ এবং তাঁর দয়ায়, সুতরাং এতে তারা আনন্দিত হওয়া উচিত। এটিই উত্তম সে সমুদয় থেকে যা তাঁরা সঞ্চয় করেছে।

-(সূরা ইউনূসঃ ৫৭-৫৮)

অত্র আয়াতে কারিমায়. আল্লাহর অনুগ্রহ এবং রহমতের জন্য আনন্দ প্রকাশ করতে বলা হয়েছে। এবং এটি সমস্ত আমলের চেয়ে ভাল বলা হয়েছে। এখন বিচার এই যে অনুগ্রহ ও রহমত  দ্বারা উদ্দেশ্য কি?

এ সম্পর্কে বিখ্যাত ‘তাফসীরে তাবায়ী ‘ শরিফের মধ্যে ইমাম ইবনে জারীর আব্দুল্লাহ ইবনে আব্বাস থেকে বর্ণনা করেছেন,

অনুগ্রহ দ্বারা উদ্দেশ্য ইসলাম আর রহমত দ্বারা উদ্দেশ্য কোরআন।

হাফেযে হাদিস, আল্লামা জালালুদ্দীন সূয়ুতি (রাহ.) তার বিশ্ব নন্দিত তাফসীর ‘আদদুরুল মানসুর’ এর মধ্যে একই সাহাবি থেকে বর্ণনা করেছেন-

‘রুহুল মায়ানি’তে আল্লামা নিসারুদ্দীন মাহমুদ আলুসী (রাহ.) এরুপ বর্ণনা করেন। তাফসীরের বর্ণনায় এস্পষ্ট ভাবে বুঝা যায়, তোমরা মহা মূল্যবান সম্পদ পেয়েছ এ জন্য ঈদ পালন কর বা খুশি উদযাপন কর।

পবিত্র কোরআনের সূরা আম্বিয়ার ১০৭ নং আয়াতে আল্লাহ তা’আলা বলেন, “আর আমি আপনাকে জগৎ সমূহের জন্য একমাত্র রহমত হিসেবেই প্রেরণ করেছি। এখানে রহমত বলতে বিশ্ব নবী (সা.) কে বলা হয়েছে।

(দুই)

আল্লাহ তায়ালা আরও ইরশাদ করেন,

আর তোমরা সেই নিয়ামতের কথা স্মরণ কর, যা আল্লাহ তা’আলা তোমাদেরকে দান করেছেন। (সূরা আল ইমরান-১০৩)

আল্লাহ তা’আলা দুনিয়াতে যত নিয়ামত দান করেছেন, তার মধ্যে সর্বোত্তম নিয়ামত হলো রাসূলুল্লাহ (সা.)।

ঈদ-ই মিলাদুন্নবী (সা.) উদযাপন করা প্রিয় নবী (সা.) এর আনুগত্যের বহিঃপ্রকাশ। যেমন আল্লাহ তা’আলা বলেন,

“তোমরা আল্লাহর কথা মান্য কর, রাসূলের আনুগত্য কর এবং তোমাদের মধ্যে যারা সৎশাসক তথা ইমাম, মুজতাহিদ সৎশাসক শরীয়াতের আইনজ্ঞ মাযহাবের ইমামগণ তাদের আনুগত্য কর।”

উপরক্ত আলোচনা আমরা জানতে পারি, পবিত্র কুরআনে ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী (সা.) এর আলোচনা রয়েছে। এবং এটাকে সর্বশ্রেষ্ঠ আমলও বলা হয়েছে। সুতরাং এটা আল্লাহর নির্দেশ অনুসারে মহান ইবাদাতে পরিণত।

হাদিসের আলোকে ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী (সা.):

হযরত রাসূলুল্লাহ (সা.) ও সাহাবায়ে কেরাম (রা.) দের যুগেও মিলাদ শরীফ পালিত হয়েছে। হুজুরে পাক (সা.) এর মিলাদ সম্পর্কে প্রায় ২১৮ টি হাদীস রয়েছে। এখানে তার কয়েকটি হাদীস আলোকপাত করা হলো।

(এক)

হযরত ইবনে আব্বাস (রা.) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, আমি আদমের পৃষ্ঠদেশ থেকে পরস্পরা ধারায় বৈবাহিক সূত্রে মিলনের ফলে মানব রুপে আমার পিতা মাতা থেকে জন্ম লাভ করেছি। ব্যভিচার বা যিনার মাধ্যমে নয়।

-(ইবনে সাদ, ইবনে আসাকির, তাবরানী, মাসনাদে ওমর, আবু নাঈম, ইবনে আবি শাইবা, মাসনাদুল ফেরদাউস)

(দুই)

হযরত আনাস (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, একদা রাসূল (সা.) ভাষণে বলেছেন, আমি মোহাম্মদ ইবনে আব্দুল্লাহ ইবনে আব্দুল মোতালেব ইবনে হাশিম ইবনে আবদে মানাফ ইবনে কুশাই ইবনে মালেক ইবনে নফর ইবনে কিনানা ইবনে খুযাতাহ ইবনে মুফরিকা ইবনে ইলিয়াস ইবনে যুফার ইবনে নাযার। যে স্থানে মানুষ দু’দলে বিভক্ত হয়েছে, সেখানে আল্লাহ তা’আলা আমাকে উত্তম দলে রেখেছেন। আমি আমার পিতা-মাতা থেকে জন্ম গ্রহণ করেছি।

(তিন)

হযরত ইরবাদ্ব ইবনে সারিয়াহ (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, তখন থেকে আমি আল্লাহ তা’আলা বান্দা এবং নবী কুলের সর্বশেষ নবী, যখন আদম (আ.) মাটির সঙ্গে মিশ্রিত ছিলেন। আমি তোমাদের আরও জানাচ্ছি যে, আমি হলাম আমার পিতা, নবী হযরত ইবরাহীম (আ.) এর দোয়ার ফসল এবং নবী হযরত ঈসা (আ.) এর সুসংবাদ, আর আমার মাতার স্বপ্ন। নবীদের মাতাগন এবাবেই স্বপ্ন দেখতেন। রাসূল (সা.) এর মাতা তাকে প্রসবের সময় এমন এক নুর প্রকাশ পেতে দেখলেন যার আলোতে সিরিয়ার মহল গুলো দেখা যাচ্ছিল।

-(মুসনাদে আহমদ, তাবরানী, হাকেম, বায়হাকী, আবু নাঈম)

(চার)

হযরত আনাস (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, আমি আমার রবের নিকট থেকে সম্মানিত যে, আমি খাতনা অবস্থায় ভূমিষ্ঠ হয়েছি। আমার লজ্জা স্থান কেউ দেখেনি। -(তাবরানী, আওসাত)

(পাঁচ)

হযরত আবু সাঈদ খুদরী (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, আমি আরবদের মধ্যে সর্বোপেক্ষা বেশী বিশুদ্ধভাষী।

এবং আমি কুরাইশ বংশে জন্ম গ্রহণ করেছি।

-(তাবরানী)

(ছয়)

হযরত আবু কাতাদাহ আনসারী খাজরাজী (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ (সা.) এর কাছে সোমবার রোজা রাখা সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি উত্তরে বলেন, এদিনে আমি জন্ম গ্রহন করেছি এবং এই দিনে আমার প্রতি নবুয়াত আবতীর্ণ হয়েছে।

-(মুসলিম শরীফ-৩৬৪ পৃষ্ঠা, মুসনাদে আবী শাইবা)

উপরোক্ত কোরআন ও হাদীসের দলিল দ্বারা প্রমাণিত হলো যে, পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী যায়েজ এবং পালন করা সুন্নত।

মহান আল্লাহ্ তায়ালা আমাদের সকলকে উত্তম বুঝ দান করুক।

এবং পবিত্র মিলাদুন্নবী (সা.) এর বরকত ও কল্যাণ লাভ করার তৌফিক দান করুক। আল্লাহুম্মা আমিন!!!



This post has been seen 894 times.
শেয়ার করুন

Recently Published

»

ইসলাম প্রতিমার বিরুদ্ধে, ভাস্কর্য ও মূর্তির বিরুদ্ধে নয়, একটি দালীলিক পর্যালোচনা

নাজমুল মুহম্মদ ...

»

আহমাদিয়া মুসলিম জামাত নামধারী কুখ্যাত কাফের কাদীয়ানিয়াদের স্বরূপ উন্মোচন – ২য় খন্ড

সোনার বাংলাসহ গোটা ...

»

মেরাজুন্নাবী (সা) এর মূল দীক্ষাকে অস্বীকার করা প্রত্যক্ষভাবে শানে রেসালাতের অস্বীকৃতি

টাইমস৭১বিডি ডেস্ক, ঢাকা ...

»

উম্মেহানী এর পরিচয় ও নাস্তিকদের দাঁত ভাংগা জবাব

মাসুদ পারভেজ – ...

»

কিভাবে বাংলাদেশের জেলায় জেলায় বিদেশী অর্থায়নে ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে সমকামীতা

নিলয় হাসান বলছি –  জেনে ...

»

হেফাজতে ইসলামের চেতনার মূল গোড়ায় “ওহাবীবাদ রাজনীতি”

ইন্টারনেট থেকে প্রাপ্ত ...

»

কাদীয়ানিয়াত আহমাদিয়া মুসলিম জামাতের স্বরূপ উন্মোচনে ধারাবাহিক আলোচনা- ১ম পর্ব

ব্লগ ডট টাইমস৭১বিডি থেকে ...

»

“খোমেনীকে সমর্থন দেওয়া মানে শিয়াবাদকে সমর্থন দেওয়া”

‘টাইমস৭১বিডি ‘র ...

»

আমার প্রিয়নবীর পিতা মাতা নিষ্পাপ-মুমিন-ঈমানদার মুসলমান ছিলেন, জাহান্নামী নন

আমার প্রিয়নবীর  (সা) পিতা ...

Shares
Loading...